বিয়েটা ব্লগ

পেমেন্ট করলেই দায়িত্ব শেষ নয়

পেমেন্ট করলেই দায়িত্ব শেষ নয়

আমাদের সাইটে অনেকেই আছেন পেমেন্ট করলেই তাদের দায়িত্ব শেষ মনে করে। আপনাকেই যোগাযোগ করতে হবে কারন পেমেন্ট করলেই দায়িত্ব শেষ নয়।

শেয়ার করুন
বিয়ের জন্য বিনিয়োগ বা পেমেন্ট এর গুরুত্ব

বিয়ের জন্য বিনিয়োগ বা পেমেন্ট এর গুরুত্ব

বিয়ের জন্য বিনিয়োগ বা পেমেন্ট এর গুরুত্ব। আমরা অনেকেই পেমেন্ট করাকে গুরুত্ব দিতে চাই না, কারণ আমরা মনে করি আমি কেন আরেকজনকে পেমেন্ট করে  অনুরোধ পাঠাবো। বরং আমাকে অনুরোধ পাঠাবে। এই আশা নিয়ে বসে থাকি। ফলে কিছু অনুরোধ আসে কিন্তু কখন, কার কাছে থেকে আসবে তার কোন ঠিক থাকে না। তাই বিয়ের জন্য বিনিয়োগ বা পেমেন্ট এর গুরুত্বপূর্ণ। 

শেয়ার করুন
বিয়ে অর্ধেক দ্বীন পূরণ করে

বিয়ে অর্ধেক দ্বীন পূরণ করে

মহান আল্লাহ্‌ বলেন, ‘আর এক নিদর্শন এই যে, তিনি তোমাদের জন্যে তোমাদের মধ্য থেকে তোমাদের সঙ্গিনীদের সৃষ্টি করেছেন, যাতে তোমরা তাদের কাছে শান্তিতে থাক এবং তিনি তোমাদের মধ্যে পারস্পরিক সম্প্রীতি ও দয়া সৃষ্টি করেছেন।’ (সুরা রুম, আয়াত : ২১)

শেয়ার করুন
বিয়েটাতে অনুমতি ছাড়া নাম্বার পাওয়া যায় না

বিয়েটাতে অনুমতি ছাড়া নাম্বার পাওয়া যায় না

আমাদের ওয়েবসাইটে পাত্র-পাত্রীর কাছে প্রথমে বায়োডাটা দেখার জন্য একটি অনুরোধ পাঠাতে হয়। মনে করুন আপনি পাত্র। কোন পাত্রীর সংক্ষিপ্ত প্রোফাইল আপনার পছন্দ হল। আপনি প্ল্যান আপগ্রেড করে ঐ পাত্রীর সম্পূর্ণ প্রোফাইল দেখার জন্য অনুরোধ পাঠালেন। এরপরে পাত্রী পক্ষ আপনার প্রোফাইল দেখে পছন্দ হলে অনুরোধ গ্রহণ করবেন এবং আপনাকে সম্পূর্ণ বায়ো-ডাটা দেখার অনুমতি দিবেন।  তখন আপনি তাঁর বিস্তারিত দেখতে পারবেন এবং যোগাযোগের জন্য অনুরোধ পাঠাতে পারবেন।  এই অনুরোধ পাঠানোর পরে ৭ দিনের মধ্যে পাত্রী পক্ষ যোগাযোগের অনুরোধ গ্রহণ করলে আপনি তাদের ফোন নাম্বার, ঠিকানা, মেইল করার সুযোগ ইত্যাদি পাবেন। 

শেয়ার করুন
আনোয়ার হোসেন এবং শায়লা হামিদ মৌ এর বিয়ে

আনোয়ার হোসেন এবং শায়লা হামিদ মৌ এর বিয়ে

তাঁরা এখন বিবাহিত দম্পত্তি। সুখেই আছেন বলে জানিয়েছেন আমাদেরকে। আমাদের ওয়েবসাইটের মাধ্যমে বিয়ে হওয়াতে আমাদেরকে ধন্যবাদ জানিয়েছেন।  
আনোয়ারের বিয়েটা সম্পর্কে বক্তব্যঃ “I am thankful to Biyeta as I found my life partner through this site” 

শেয়ার করুন
দ্রুত বিয়ে করার উপায়

দ্রুত বিয়ে করার উপায়

আমাদের কিছু পরামর্শ তাদের জন্য যারা বিয়েটা’র মাধ্যমে দ্রুত বিয়ে করতে চান। অনেকেই জানতে চান যে আমাদের মাধ্যমে কত জনের বিয়ে হয়েছে। আজ পর্যন্ত (০৩-০৪-২০২২) বিয়েটার সব মিলিয়ে মোট ইউজার ৮৯৩৩২ জন। আর এই বিরাট পরিবারের কে যে কখন বিয়ে করছে তা যদি ফিডব্যাকে উল্লেখ না করেন তাহলে জানা সম্ভব নয়। তবে ফিডব্যাকে উল্লেখ করলে আমরা তাদের সাথে যোগাযোগ করে উপহার দেই। অনেকেই এই উপহার পেয়েছেন। তবে সবার সাথে যোগাযোগ করে উপহার দেওয়া সম্ভব হয়নি। গত বছর অর্থাৎ ২০২১ সালে ৮৯ টি বিয়ে বিয়েটার মাধ্যেম বিয়ে হয়েছে বলে ইউজাররা ফিডব্যাকে উল্লেখ করেছেন।

শেয়ার করুন
বিয়েটা ডট কমে পাত্র-পাত্রীর ফোন নাম্বার পেতে একটু বেশি সময় লাগে

বিয়েটা ডট কমে পাত্র-পাত্রীর ফোন নাম্বার পেতে একটু বেশি সময় লাগে

আমাদের বিয়েটা ডট কমের ইউজারদের একটি গুরুত্বপূর্ণ অভিযোগ এই কথাটি। আমরাও স্বীকার করছি। কারণ প্রথমে সম্পূর্ন বায়ো-ডাটা দেখার অনুরোধ, পরে যোগাযোগের অনুরোধ অর্থাৎ ২ টি অনুরোধ গৃহীত হলে এই ফোন নাম্বার, ঠিকানা পাওয়া যায়। আর এতে অনেক সময় লেগে যায়।

শেয়ার করুন
বিয়েটা হেল্পলাইনের কাজ কী?

বিয়েটা হেল্পলাইনের কাজ কী?

বিয়েটা ডট কমে রেজিস্ট্রেশন এর পরে সাধারণত নিজেই নিজের পছন্দের মানুষকে প্ল্যান আপগ্রেড করে অনুরোধ পাঠাতে হয়। আর অপর পক্ষ যখন নিজেই সিদ্ধান্ত নিয়ে প্রোফাইল দেখে প্রথম অনুরোধটি অর্থাৎ বায়ো-ডাটা দেখার অনুরোধ গ্রহণ করে তখন যোগাযোগের অনুরোধ পাঠাতে হয়। আর যোগাযোগের অনুরোধ পাঠানোর পরে ৭ দিনের মধ্যে অপর পক্ষ যদি অনুরোধটি গ্রহণ করে তাহলে ফোন নাম্বার, ঠিকানা এবং মেসেজ পাঠানোর অনুমোদন পাওয়া যায়। 

শেয়ার করুন
ফ্রিতেই হতে পারে বিয়ে

ফ্রিতেই হতে পারে বিয়ে

বিয়েটা ডট কমে রেজিস্ট্রেশন এর পরে যদি কেউ আপনাকে অনুরোধ পাঠায় আর আপনার সাথে তার সব পছন্দ-অপছন্দ মিলে যায় তাহলে ফ্রিতেই হতে পারে বিয়ে। 
বিয়েটা ডট কমে রেজিস্ট্রেশন করতে কোন ফি দিতে হয় না। রেজিস্ট্রেশন করতে শুধু একটি ভ্যালিড ই-মেইল আইডি লাগে। আর রেজিস্ট্রেশেন এর সময় আপনার  মোবাইল নাম্বারে  যাবে একটি ভেরিফিকেশন কোড, ভেরিফিকেশন কোড বসিয়ে সঠিক তথ্য দিয়ে প্রোফাইল কমপ্লিট করলেই হতে পারে বিয়ে একদম ফ্রিতেই হতে পারে বিয়ে।   

শেয়ার করুন
সিদ্ধান্ত নিতে হবে আপনাকে

সিদ্ধান্ত নিতে হবে আপনাকে

বিয়ের ব্যাপারে খুব গুরুত্বপূর্ণ একটি বিষয় হল সিদ্ধান্ত নেওয়া। প্রায় সব কিছু মিলে যাওয়ার পরেও অনেকেই সিদ্ধান্ত নিতে পারেন না। যার ফলে বিয়ে বিলম্ব হয়। সিদ্ধান্ত নিতে হবে। অদূর ভবিষ্যতের কথা আমরা কেউ জানিনা। এটা জানা সম্ভব না। ভাল ধারণা নিয়ে এগুতে হবে। মহান আল্লাহর কাছে ভাল কিছু আশা করতে হবে। সতর্ক ও সচেতন হতেRead more about সিদ্ধান্ত নিতে হবে আপনাকে[…]

শেয়ার করুন