বিয়েটা ব্লগ

স্ত্রী মহান আল্লাহর পক্ষ থেকে আপনার জন্য উপহার

স্ত্রী মহান আল্লাহর পক্ষ থেকে আপনার জন্য উপহার

বিয়ের উপযুক্ত হওয়া সত্ত্বেও বিভিন্ন অহেতুক ভয়ের কারণে আমরা অনেক সময় বিয়ে করার মতন সিদ্ধান্ত নিতে পারিনি।  বিয়ের কথা চিন্তা করলেই সবার আগে মনের ভিতর বিভিন্ন নেতিবাচক বিষয় এসে যায়। যেমন স্ত্রীর ভরন পোষণ, বিয়ের জন্য বিরাট অনুষ্ঠান, আত্মীয় এবং বন্ধুদের সবাইকে দাওয়াত দেওয়া, সারা জীবন স্ত্রীর সাথে মিলে মিশে চলা, মা-বাবাকে ম্যানেজ করা ইত্যাদি।Read more about স্ত্রী মহান আল্লাহর পক্ষ থেকে আপনার জন্য উপহার[…]

শেয়ার করুন
পেমেন্ট করলেই দায়িত্ব শেষ নয়

পেমেন্ট করলেই দায়িত্ব শেষ নয়

আমাদের সাইটে অনেকেই আছেন পেমেন্ট করলেই তাদের দায়িত্ব শেষ মনে করে। আপনাকেই যোগাযোগ করতে হবে কারন পেমেন্ট করলেই দায়িত্ব শেষ নয়।

শেয়ার করুন
বিয়ের জন্য বিনিয়োগ বা পেমেন্ট এর গুরুত্ব

বিয়ের জন্য বিনিয়োগ বা পেমেন্ট এর গুরুত্ব

বিয়ের জন্য বিনিয়োগ বা পেমেন্ট এর গুরুত্ব। আমরা অনেকেই পেমেন্ট করাকে গুরুত্ব দিতে চাই না, কারণ আমরা মনে করি আমি কেন আরেকজনকে পেমেন্ট করে  অনুরোধ পাঠাবো। বরং আমাকে অনুরোধ পাঠাবে। এই আশা নিয়ে বসে থাকি। ফলে কিছু অনুরোধ আসে কিন্তু কখন, কার কাছে থেকে আসবে তার কোন ঠিক থাকে না। তাই বিয়ের জন্য বিনিয়োগ বা পেমেন্ট এর গুরুত্বপূর্ণ। 

শেয়ার করুন
বিয়েটা সার্ভিস সম্পর্কে জানতে চাই

বিয়েটা সার্ভিস সম্পর্কে জানতে চাই

যারা বিয়ের জন্য আগ্রহী তারাই শুধু বিয়েটাতে রেজিস্ট্রেশন করবেন। তবে আপনি চাইলে আপনার ভাই এর জন্য, বোনের জন্য, সন্তানের জন্য রেজিস্ট্রেশন করতে পারবেন।

শেয়ার করুন
বিয়ের আগে পরিচয় থাকলে বিয়ে সফল হবার সম্ভবনা কি বেশী?

বিয়ের আগে পরিচয় থাকলে বিয়ে সফল হবার সম্ভবনা কি বেশী?

বর্তমানে অনেকেই বিয়ের উপযুক্ত হলেই একজন ছেলে অথবা মেয়ে একাধিক সম্পর্কে জড়িয়ে যায় এবং যাকে তার কাছে সেরা মনে হয় তার সাথে বিয়ের বন্ধনে আবদ্ধ হতে চায়-এই পদ্ধতিকে তারা সঠিক মনে করে। এরফলে বিয়ের আগেই একজন ছেলে একাধিক মেয়ের সাথে সম্পর্ক গড়ে বা প্রেম করে। একইভাবে একজন মেয়েও একাধিক ছেলের সাথে সম্পর্ক করে বাছাই করতে থাকে যে কে তার জন্য সেরা হবে। এভাবে আসলেও কি নিজের জীবন সঙ্গী বাছাই করা বা সিদ্ধান্ত নেওয়া ঠিক হবে? 

শেয়ার করুন
বিয়ে অর্ধেক দ্বীন পূরণ করে

বিয়ে অর্ধেক দ্বীন পূরণ করে

মহান আল্লাহ্‌ বলেন, ‘আর এক নিদর্শন এই যে, তিনি তোমাদের জন্যে তোমাদের মধ্য থেকে তোমাদের সঙ্গিনীদের সৃষ্টি করেছেন, যাতে তোমরা তাদের কাছে শান্তিতে থাক এবং তিনি তোমাদের মধ্যে পারস্পরিক সম্প্রীতি ও দয়া সৃষ্টি করেছেন।’ (সুরা রুম, আয়াত : ২১)

শেয়ার করুন
বিয়ে আপনার, দায়িত্ব আমাদের, বিয়েটা

বিয়ে আপনার, দায়িত্ব আমাদের, বিয়েটা

বিয়েটা ডট কমে বর্তমানে (১৫-০৫-২০২৩) পর্যন্ত মোট ইউজার ১ লাখ ১ হাজার ৪৬৩ জন। পাত্র ৬৯,০৩৩ জন এবং পাত্রী ২৮,১৫৬ জন। এর মধ্যে মুসলিম পাত্রী ৭৮৭৪ জন, মুসলিম পাত্র ২৬,৪৩৯ জন। হিন্দু পাত্র ২,৬০৭ জন, হিন্দু পাত্র ৭৩৫ জন, এছাড়া অন্যান্য ধর্মের পাত্র/পাত্রী রয়েছে।

শেয়ার করুন
বিয়ের বয়স কত হওয়া উচিৎ?

বিয়ের বয়স কত হওয়া উচিৎ?

আমাদের বাংলাদেশের প্রেক্ষাপটে সরকারি নিয়ম অনুযায়ী ছেলেরা ২১ এর আগে এবং মেয়েরা ১৮ এর আগে বিয়ে করতে পারবে না। অর্থাৎ সরকারি নিয়ম অনুযায়ী বিয়ের ছেলেদের নুন্যতম বয়স ২১ এবং মেয়েদের ১৮ বছর। 

শেয়ার করুন
আল্লাহর কাছে বিধবার চাওয়া ও দোয়া

আল্লাহর কাছে বিধবার চাওয়া ও দোয়া

আল্লাহ তা’আলা বলেন, আর যে ব্যক্তি আল্লাহর উপর নির্ভর করবে, তার জন্য তিনিই যথেষ্ট হবেন। নিশ্চয় আল্লাহ তাঁর (আল্লাহ্‌র) ইচ্ছা পূরণ করবেনই। আয়াতঃ ৩, সূরা, ত্বলাক্ব 
আবু ছালামা (রাঃ) কোন একদিন রাসুলুল্লাহ (সাঃ) এর কাছে বিপদে পড়লে কি দোয়া পড়তে হবে তা শিখে এসে নিজের স্ত্রীকে শিক্ষা দিলেন যে, কেউ যদি বিপদে পড়ে তখন যদি এই দোয়া পড়ে তবে নিশচয় তার মনের আশা আল্লাহ পুরণ করে দিবেন।

দোয়াটি হলঃ

اِنَّا لِلّهِ وَ اِنَّا اِلَيْهِ رَاجِعْوْنَ – اَللَّهُمَّ أجُرْنِيْ فِيْ مُصِيْبَتِيْ وَ أَخْلِفْ لِيْ خَيْراً مِّنْهَا

“ইন্নালিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন। আল্লাহুম্মা আজিরনি ফি মুসিবাতি ওয়াখলিফলি খাইরামমিনহা।”

শেয়ার করুন
বিয়েটাতে অনুমতি ছাড়া নাম্বার পাওয়া যায় না

বিয়েটাতে অনুমতি ছাড়া নাম্বার পাওয়া যায় না

আমাদের ওয়েবসাইটে পাত্র-পাত্রীর কাছে প্রথমে বায়োডাটা দেখার জন্য একটি অনুরোধ পাঠাতে হয়। মনে করুন আপনি পাত্র। কোন পাত্রীর সংক্ষিপ্ত প্রোফাইল আপনার পছন্দ হল। আপনি প্ল্যান আপগ্রেড করে ঐ পাত্রীর সম্পূর্ণ প্রোফাইল দেখার জন্য অনুরোধ পাঠালেন। এরপরে পাত্রী পক্ষ আপনার প্রোফাইল দেখে পছন্দ হলে অনুরোধ গ্রহণ করবেন এবং আপনাকে সম্পূর্ণ বায়ো-ডাটা দেখার অনুমতি দিবেন।  তখন আপনি তাঁর বিস্তারিত দেখতে পারবেন এবং যোগাযোগের জন্য অনুরোধ পাঠাতে পারবেন।  এই অনুরোধ পাঠানোর পরে ৭ দিনের মধ্যে পাত্রী পক্ষ যোগাযোগের অনুরোধ গ্রহণ করলে আপনি তাদের ফোন নাম্বার, ঠিকানা, মেইল করার সুযোগ ইত্যাদি পাবেন। 

শেয়ার করুন